করোনা নিয়ন্ত্রণে কোনো ভুল সিদ্ধান্ত নেয়নি বাংলাদেশ

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান সোমবার বলেছেন, করোনাভাইরাস নিয়ন্ত্রণে বাংলাদেশ কখনো কোনো ভুল সিদ্ধান্ত নেয়নি

5 / 100

তিনি বলেন, ‘কোভিড-১৯ আমাদের জন্য একটি নতুন চ্যালেঞ্জ ছিল। আমাদের প্রধানমন্ত্রী সেই চ্যালেঞ্জগুলো মোকাবিলায় সব সঠিক সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছেন। আমরা এখন পর্যন্ত করোনা নিয়ন্ত্রণে কোনো ভুল সিদ্ধান্ত গ্রহণ করিনি। আর এ জন্যই বাংলাদেশে কোভিড-১৯ বেশি প্রভাব ফেলেনি।’

রাজধানীর একটি হোটেলে চিকিৎসা সরঞ্জাম উৎপাদনকারী প্রতিষ্ঠান জেএমআই গ্রুপের তৈরি মাস্কের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে মন্ত্রী এসব কথা বলেন।

মহামারি পরিস্থিতিতে কেএন৯৫ মাস্ক বাজারে আনার জন্য জেএমআইকে ধন্যবাদ জানিয়ে মন্ত্রী বলেন, ‘আমরা লক্ষ্য করেছি যে অনেক দেশ এ ধরনের মাস্ক তৈরি করছে। এখন আমাদের দেশীয় প্রতিষ্ঠানও এটি বাজারে এনেছে।’

তিনি বলেন, করোনায় এমন পরিস্থিতিও তৈরি হয়েছিল যখন করোনাভাইরাসের আতঙ্কে ছেলেও তার বাবা-মায়ের লাশ দাফন করেনি। এখন সেই পরিস্থিতির উন্নতি হয়েছে।

জাপান বাংলাদেশের উন্নয়নের বড় অংশীদার উল্লেখ করে আসাদুজ্জামান খান বলেন, ‘আমাদের মেট্রোরেল তৈরির কাজ জাপানের সহায়তায় এগিয়ে চলছে। জাপান সরকার সব সময় আমাদের সহায়তা করেছে। এখন তারা বাংলাদেশের স্বাস্থ্য এবং বিভিন্ন প্রযুক্তি খাতেও এগিয়ে এসেছে। এজন্য আমি তাদের ধন্যবাদ জানাই।’

তিনি বলেন, ‘উপমহাদেশের মধ্যে করোনাভাইরাস নিয়ন্ত্রণে আমরাই প্রথমে উদ্যোগ নিয়েছি। ভাইরাস সংক্রমণের শুরুর দিকে চীনকে ১০ লাখ হ্যান্ড গ্লোভস পাঠিয়েছিল বাংলাদেশ।’

বিশ্ববাজারে ওষুধ রফতানিতে বাংলাদেশ এখন মুখ্য ভূমিকা পালন করছে যা একসময় আমাদের জন্য স্বপ্ন ছিল, বলেন তিনি।

মন্ত্রী আরো বলেন, ‘মহামারির মাঝে আমি একদিনও বিশ্রাম নেইনি। আমি আমার কাজ চালিয়ে যাচ্ছি। বাংলাদেশ যেকোনোভাবে এগিয়ে যাবে বলে আমরা আশা রাখি।’

জেএমআই গ্রুপের প্রতিষ্ঠাতা ও ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. আবদুর রাজ্জাকের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য দেন স্বাধীনতা চিকিৎসক পরিষদ (স্বাচিপ) সভাপতি অধ্যাপক ডা. ইকবাল আর্সলান।

সূত্র : ইউএনবি

5 / 100
আরও পড়ুন
Loading...